-->

বেনজীর ও তার পরিবারের আরও ৪ দলিলের সম্পত্তি ক্রোকের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক
বেনজীর ও তার পরিবারের আরও ৪ দলিলের সম্পত্তি ক্রোকের নির্দেশ

পুলিশের সাবেক মহাপরিদর্শক (আইজিপি) বেনজীর আহমেদ ও তার স্ত্রী-সন্তানদের নামে থাকা আরও সম্পত্তি ও ফ্ল্যাট ক্রোক (জব্দ) করার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। দুদকের করা আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালত ও সিনিয়র বিশেষ জজ মোহাম্মদ আসসামছ জগলুল হোসেন বুধবার এ আদেশ দেন। বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) বিশেষ পিপি মাহমুদ হোসেন জাহাঙ্গীর। আদেশের কপি পাওয়ার পর কার্যকরী ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য দুদককে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান তিনি।

যেসব সম্পদ ক্রোকের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে সেগুলো হলো- নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের আনন্দ হাউজিং সোসাইটির ছয় কাঠার চারটি প্লটে মোট ২৪ কাঠা জমি, গুলশানের তিন কাঠা জমি, রাজধানীর বাড্ডার ১৩ দশমিক ৬৬ কাঠা জমি ও রূপায়ণ মিলেনিয়াম স্কয়ারে ৩ হাজার ৭৫ বর্গফুট আয়তনের অফিস গাড়ি পার্কিংসহ, বান্দরবানে লিজ দলিলের মাধ্যমে নেওয়া ২৫ একর জমি, রাজধানীর উত্তরায় ফ্ল্যাট ও আদাবরে পিসিকালচার এলাকায় তার স্ত্রীর নামে ছয়টি ফ্ল্যাট।এছাড়া বেনজীর আহমেদের নামে শেয়ার থাকা সিটিজেন টেলিভিশন লিমিটেড ও টাইগার ফিট অ্যাপারেলস লিমিটেডের মালামালসমূহও ক্রোক করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে জানান দুদকের এই আইনজীবী।

এর আগে ২৩ এপ্রিল ও ২৬ এপ্রিল দুই দফায় বেনজীর ও তার পরিবারের সদস্যদের নামে থাকা ৬২৪ বিঘা জমি ও ১৯টি কোম্পানির শেয়ার, গুলশানে ৪টি ফ্ল্যাট ক্রোকের আদেশ দিয়েছিলেন আদালত। এ ছাড়া ৩০ লাখ টাকার সঞ্চয়পত্র, ৩৩টি ব্যাংক হিসাব এবং তিনটি বিও হিসাব ( শেয়ার ব্যবসার বেনিফিশিয়ারি ওনার্স অ্যাকাউন্ট) অবরুদ্ধ করার আদেশ দেন আদালত। আদালত মানিলন্ডারিং প্রতিরোধ আইন, ২০১২ এর ১৪ ধারা এবং দুর্নীতি দমন কমিশন, বিধিমালা-২০০৭ এর বিধি ১৮ অনুযায়ী স্থাবর সম্পত্তি ক্রোক (অ্যাটাচ) এবং অস্থাবর সম্পত্তি অবরুদ্ধ (ফ্রিজ) করার নির্দেশ দেন।

পরে তার আরও সম্পদের খোঁজ পাওয়া যায়। সেই সব সম্পদ ক্রোকের আদেশ চেয়ে দুদক বুধবার আদালতে আবেদন করেন দুদকের উপপরিচালক হাফিজুল ইসলাম। শুনানির পর আদালত বেনজীর আহমেদের সম্পদ ক্রোকের আদেশ দিয়েছেন। আবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে- পরবর্তী সময়ে আরও সম্পদের সন্ধান পাওয়া গেলে সেগুলো ক্রোক ও অবরুদ্ধ করার আবেদন করা হবে। এসব সম্পদ বেনজীর আহমেদ, তার স্ত্রী জিশান মির্জা, বড় মেয়ে ফারহিন রিস্তা বিনতে বেনজীর, মেজো মেয়ে জাহরাহ জারিন এবং ছোট মেয়ে তাহসিন রাইসা বিনতে বেনজীরের নামে রয়েছে। বেনজীর পরিবার বর্তমানে সিঙ্গাপুরে রয়েছেন বলে জানা গেছে।

মন্তব্য

Beta version